স্বাগতম :
আজ: মঙ্গলবার, অক্টোবর ২৪, ২০১৭
সুন্দরবনে বন্দুকযুদ্ধ: নিহত ২ শেয়ার কেনাবেচায় নতুন নির্দেশনা অভিন্ন ভিসা পদ্ধতির সুপারিশ যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে গির্জায় হামলা দুদক ফাঁদে ওয়াকফের সহকারী প্রশাসক মৃত মানবীর অবয়ব (ফাতেমা হক মুক্তা) পটুয়াখালীতে দেশের সর্ব বৃহৎ বিদ্যুৎ কেন্দ্র শীতের সবজিতে ঘাটতির আশঙ্কা সংবিধানের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করা আমাদের দায়িত্ব ঐতিহাসিক জেল হত্যা দিবস

‘আরসা জঙ্গিদের’ গোয়েন্দা তথ্য চেয়েছে মিয়ানমার

এসবিডি নিউজ24 ডট কম,ডেস্ক: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল জানিয়েছেন, গণহত্যা ও নির্যাতনের মুখে বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গা নাগরিকদের ফিরিয়ে নিতে সম্মত হয়েছে মিয়ানমার। কফি আনান কমিশন সুপারিশ বাস্তবায়নের অঙ্গীকারও করেছে দেশটি। এ ব্যাপারে শিগগির কাজ শুরু হবে। মিয়ানমারের রাজধানী নেইপিদোতে উভয় দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী একসঙ্গে বৈঠক করে এ ধরনের নিদ্ধান্ত নেন। মিয়ানমারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী লে. কর্নেল চ সুয়ি এবং পুলিশ প্রধান ওই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।


স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ১২ সদস্যের বাংলাদেশ প্রতিনিধি দল নিয়ে গতকাল মিয়ানমারে ৩ দিনের সরকারি সফরে গেছেন। এ সফরকালে রোহিঙ্গা সংকটসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে মিয়ানমার সরকারের সঙ্গে তারা আলোচনা করবেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের লক্ষ্যে ২ দেশের সমানসংখ্যক প্রতিনিধি নিয়ে খুব শিগগির একটি যৌথ ওয়ার্কিং কমিটি গঠন করা হবে। নভেম্বরের ৩০ তারিখের মধ্যে এই যৌথ কমিটি গঠনের প্রস্তাব করেছেন তিনি।


স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন তিনি মিয়ানমার কর্তৃপক্ষকে বলেছেন কফি আনান কমিশনের সুপারিশের ভিত্তিতে যৌথ এই কমিটি ঠিক করবে রোহিঙ্গাদের কীভাবে ফিরিয়ে নেয়া হবে। তিনি বলেন, ‘তারা ফেরত নেয়ার কথা বলেছে, তারা জানিয়েছে তাদের সরকার প্রধান কফি আনান কমিশন বাস্তবায়নের জন্য কয়েকটি কমিটি তৈরি করেছেন। কিন্তু আমরা বলেছি বাংলাদেশের সমান সংখ্যক প্রতিনিধি নিয়ে যৌথ ওয়ার্কিং কমিটির তত্ত্বাবধানেই কফি আনান কমিশনের বাস্তবায়ন হতে হবে।’


জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিবের ওই কমিশন রোহিঙ্গাদের নাগরিক অধিকার দেয়ার সুপারিশ করেছে যা নিয়ে মিয়ানমার সরকারের ঘোরতর আপত্তি রয়েছে। মন্ত্রী বলেন, তিনি রাখাইনে নির্যাতন বন্ধের দাবি করেছেন যাতে রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশ বন্ধ হয়। তারা বলেছেন কোনো নির্যাতন হচ্ছে না, তারা (রোহিঙ্গারা) নিজেরাই চলে যাচ্ছে। আমি বলেছি চলে যাওয়া ঠেকান আপনারা। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, মিয়ানমার কর্তৃপক্ষ ‘আরসা জঙ্গিদের’ ব্যাপারে বাংলাদেশের কাছ থেকে গোয়েন্দা তথ্য চেয়েছে।

[সূত্র: বিবিসি বাংলা।]

প্রাসঙ্গিক সংবাদঃ

  • ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাথে খালেদা জিয়ার সাক্ষাৎ
  • রোহিঙ্গা সংকটের সমাধান সম্ভব
  • ৪ লাখ ৮০ হাজার রোহিঙ্গা শরণার্থী
  • বাংলাদেশকে জাতিসংঘের ‘ধন্যবাদ’
  • বাংলার মাটিতে জঙ্গিদের ঠাঁই নেই